পরপর ৪ উইকেট হারিয়ে বিপদে টাইগাররা

দিনের শুরুতে প্রতিরোধ গড়েছিলেন পিটার মুর এবং রেগিস চাকাভা। ধীরেসুস্থে দলকে এগিয়ে নিচ্ছিলেন বড় সংগ্রহের দিকে। আগের দিনের অবিচ্ছিন্ন ৩৫ রানের জুটিতে বাড়িয়ে ৬০ রানে নিয়ে গিয়েছিলেন এ দুজন। এরপরই শুরু তাইজুলের ঘূর্ণি জাদু।

বাঁহাতি এ স্পিনারের ভেলকিতে মাত্র ২১ রানেই শেষের পাঁচ উইকেট হারিয়ে ২৮২ রানে অলআউট হয়ে গিয়েছে জিম্বাবুয়ে।

তাইজুল তার ক্যারিয়ারে চতুর্থবারের মতো পাঁচ উইকেট নিয়েছেন। ইনিংস শেষে তার বোলিং ফিগার ৩৯.৩-৭-১০৮-৬। ক্যারিয়ারে এর ছয় বা তার বেশি উইকেট আরও দুইবার নিয়েছিলেন তিনি। অভিষিক্ত স্পিনার নাজমুল ইসলাম অপু নিয়েছেন ২টি উইকেট। অন্য দুই উইকেট গিয়েছে অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ও একাদশের একমাত্র পেসার রাহির ঝুলিতে।

৫ উইকেটে ২৩৬ রানে প্রথম দিন শেষ করা জিম্বাবুয়ে দ্বিতীয় দিন সকালে ব্যাট করতে পেরেছে ২৬.৩ ওভার। এ সময়ে মাত্র ৪৬ রান তুলতেই অলআউট হয়ে গিয়েছে সফরকারীরা।

২৮২ রানের লক্ষ্যে প্রথম ইনিংসে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুতেই বিপদে পড়ে বাংলাদেশ। দলীয় ৮ রানের মাথায় প্রথম উইকেটের পতনের পর স্কোরবোর্ডে আর ১১ রান যোগ করতেই ৪ উইকেট হারিয়েছে বাংলাদেশ।

এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ১০ ওভার শেষে বাংলাদেশের সংগ্রহ ৪ উইকেট হারিয়ে ১৯ রান। মুশফিক ০ ও মুমিনুল ০ রান করে ব্যাট করছেন। ইমরুল ৫, মাহমুদউল্লাহ ০, শান্ত ৫ ও লিটন ৯ রান করে আউট হয়েছেন।